‘মানুষের রক্তচোষা টাকা বিদেশি বান্ধবীদের দেন ইউনূস’

নিজস্ব প্রতিবেদক।।

‘পদ্মা সেতু বন্ধের ষড়যন্ত্রকারী সুদখোর মুহাম্মদ ইউনূস তার বিদেশি বান্ধীদের দিতে এতো টাকা কোথায় পেলেন? মানুষের রক্তচোষা টাকার উৎস কোথায়? জাতি এসব জানতে চায়।’- বুধবার সন্ধ্যায় জাতীয় সংসদে রাষ্ট্রপতির ভাষণের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে এসব কথা বলেন সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য অ্যাড. ফজিলাতুন্নেসা বাপ্পী।

এ সময় তিনি আরো বলেন, সুদখোর ইউনূস তার বান্ধবী হিলারিকে মানুষের রক্তচোষা টাকা দিয়েছেন। টিআইবির ইফতেখারুজ্জামান, সুজনের বদিউল আলম, ঘষেটি ভবন খালেদা জিয়া ও তার সাঙ্গপাঙ্গরা মিলে পদ্মা সেতু বন্ধের ষড়যন্ত্র করেছিল। কিন্তু  দেশকে যারা দুর্নীতিতে ৫ম বার প্রথম স্থান অধিকার করিয়েও তাদের মন ভরেনি। খালেদা জিয়ার দুই পুত্র যে চরম দুর্নীতি ও লুটপাট করেছিল, সেসবের সমালোচনা করেন তিনি।

বক্তব্যের শুরুতে বাপ্পী বলেন, বর্তমান প্রধামন্ত্রীর নেতৃত্বে দেশে ৫ কোটি লোক নিম্ন মধ্যবিত্ত থেকে মধ্যবিত্ত হয়েছে। সুষম উন্নয়নে ভারত পাকিস্তানকে পিছনে ফেলেছে। মাথাপিছু আয় ১৪৬৬ ডলার ছাড়িয়েছে। টানা ছয় বছর অর্থনৈতিক ধারা অব্যাহত রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, সমুদ্র জয় করেছি, ২০২১ সালে প্রতি ঘরে বিদ্যুতের আলো পৌঁছাবে। ২০৩০ সালের মধ্যে বাংলাদেশ পৃথিবীর ২৯তম অর্থনৈতিক শক্তিশালী রাষ্ট্র হিসাবে পৃথিবীর বুকে মাথা উঁচু করে দাঁড়াবে।

/ইউডি/

কোন মন্তব্য নেই

মতামত দিন